জমি নিয়ে বিরোধ দৌলতখানে বৃদ্ধ দম্পতিকে মারধর

হাসনাইন আহম্মেদ, দৌলতখান ভোলা প্রতিনিধি: ভোলার দৌলতখানে জমিজমা সংক্রান্ত বিরোধের জেরে বৃদ্ধা মনোয়ারা বেগম ও তার স্বামী জাকির হোসেন মাষ্টারকে মারধর করার অভিযোগ পাওয়া গেছে। উপজেলার সৈয়দপুর ইউনিয়নের ১ নং ওয়ার্ডের শেরু মাষ্টার বাজারে এঘটনা ঘটে।

বৃদ্ধ দম্পতিকে মারধর করার ঘটনা স্থানীয়দের মধ্যে ক্ষোভ বিরাজ করছে। আহত মনোয়ারা দৌলতখান হাসপাতাল থেকে ও তার স্বামী জাকির হোসেন মাষ্টার প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়েছে। এঘটনায় ভুক্তভোগী মনোয়ারা বাদী হয়ে দৌলতখান থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন।

অভিযোগেরপর থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) নজরুল ইসলাম ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। তিনি বলেন, দীর্ঘদিন ধরে মনোয়ারা ও খোকন গংদের সাথে জমিজমা সংক্রান্ত বিরোধ চলে আসছে। ঘটনার দিন উভয়পক্ষের মধ্যে হাতাহাতি হয়। বিষয়টি তদন্ত শেষে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে। তবে খোকন বাদী হয়ে মনোয়ারা গংদের বিরুদ্ধে থানায় মামলা দায়ের করেছে।

মনোয়ারা রোববার সাংবাদিকদের জানান, দীর্ঘদিন ধরে একই ইউনিয়নের ১ নং ওয়ার্ডের খোকন গংদের সাথে আমাদের দখলীয় জমি নিয়ে বিরোধ চলে আসছে। এনিয়ে একাধিকবার গ্রাম্যভাবে শালিস বৈঠকও হয়েছে। ঘটনার দিন বৃহস্পতিবার(০১অক্টোবর) সন্ধ্যায় আমার স্বামী জাকির হোসেন মাষ্টারের সাথে বিরোধপূর্ণ জমি নিয়ে প্রতিপক্ষ খোকন গংদের সাথে বাকবিতণ্ডা হয়।

এ বাকবিতণ্ডাকে কেন্দ্র করে খোকন ও তার ভাই সেলিম, মোশারফ হোসেন (রতন) আমার স্বামী জাকির হোসেন মাষ্টারকে মারধর করে। খবর পেয়ে আমি ঘটনাস্থলে আসলে আমাকেও তারা মারধর করে। পরে স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে দৌলতখান হাসপাতালে এনে বর্তী করান।

এদিকে এবিষয়ে বক্তব্য নেয়ার জন্য খোকনকে মুঠোফোন ফোন করলেও তিনি ফোন রিসিভ করেননি। তাই তার বক্তব্য নেয়া সম্ভাব হয়নি